মঙ্গলবার, এপ্রিল ১৩
শীর্ষ সংবাদ

সোস্যাল মিডিয়া

ফেইসবুক কবে খুলবে ‘বলতে পারছে না’ বিটিআরসি
জাতীয়, সোস্যাল মিডিয়া

ফেইসবুক কবে খুলবে ‘বলতে পারছে না’ বিটিআরসি

অধিকার ডেস্ক:: প্রায় তিন দিন ধরে বন্ধ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুক কবে খুলে দেওয়া হবে তা এখনই বলতে পারছে না নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন কমিশন-বিটিআরসি। বিটিআরসি’র ভাইস-চেয়ারম্যান সুব্রত রায় মৈত্র সোমবার বিবিসিকে এ কথা বলেছেন। এর আগে ফেসবুকের পক্ষ থেকে শনিবারই বিবৃতি দিয়ে বলা হয়, বাংলাদেশে তাদের ‘একাধিক সেবা সীমিত করার’ বিষয়ে অবগত আছে তারা। বিষয়টি তারা বোঝার চেষ্টা করছে। আশা করছে, দ্রুতই তাদের পূর্ণাঙ্গ সেবা আবার সচল হবে। তবে এর পর দুদিন পরেও পরিস্থিতির কোনো উন্নয়ন হয়নি। অনেকেই ফেইসবুকে লগইন করতে পারছেন না। যাদের লগইন করা আছে তারা পাচ্ছেন না কোনো আপডেট। ভালোভাবে কাজ করছে না মেসেঞ্জার সেবাও। এমনকি কোথাও কোথাও উচ্চগতির ইন্টারনেটের গতিও কমিয়ে রাখা হচ্ছে। এ রকম অবস্থায় ক্ষতির মুখে পড়েছেন ফেইসবুক, মেসেঞ্জার ও অনলাইন-ভিত্তিক ক্ষুদ্র উদ্যোক্তারা। এ বিষয়ে বি...
বাংলাদেশে ফেসবুক ও মেসেঞ্জার ডাউন
সাব লিড, সোস্যাল মিডিয়া

বাংলাদেশে ফেসবুক ও মেসেঞ্জার ডাউন

অধিকার ডেস্ক:: বাংলাদেশে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক ও মেসেঞ্জার ডাউন হয়ে আছে বলে জানিয়েছেন ব্যবহারকারীরা। শুক্রবার বিকেল সাড়ে পাঁচটা থেকে ফেসবুক ও মেসেঞ্জার ব্যবহার করতে অসুবিধায় পড়তে হয়েছে বলে জানান তারা। অপারেটর সূত্র জানায়, ঢাকার বায়তুল মোকাররম মসজিদসহ কিছু এলাকা ও চট্টগ্রামের হাটহাজারী এলাকায় দ্রুতগতির মোবাইল ইন্টারনেট সেবা সাময়িকভাবে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফরের বিরোধিতা করে আজ দুপুরের পর বায়তুল মোকাররম ও হাটহাজারীতে বিক্ষোভ-সংঘর্ষ হয়। এর মধ্যে হাটহাজারীতে চারজন নিহত হয়েছেন বলে পুলিশ জানিয়েছে। অপারেটর সূত্রে জানা গেছে, সন্ধ্যার আগে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি) থেকে মোবাইল অপারেটরগুলোকে সংশ্লিষ্ট এলাকায় দ্রুতগতির ইন্টারনেট সেবা বন্ধ করার নির্দেশ দেওয়া হয়। ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডারেরা বলছেন, বি...
ঘরে বসেই উদ্যোক্তা হয়ে উঠা হয়ে উঠা নারীর গল্প
সারা দেশ, সোস্যাল মিডিয়া

ঘরে বসেই উদ্যোক্তা হয়ে উঠা হয়ে উঠা নারীর গল্প

গৌতম চন্দ্র বর্মন, ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি:: ফেসবুক প্লাটফর্ম এর মাধ্যম হিসেবে ব্যবহার করে ঘরে বসেই উদ্যোক্তা হয়ে উঠেছেন নারীরা। এখন দেশে প্রায় ২০ হাজার ফেসবুক পেজে কেনাকাটা চলছে। এর মধ্যে ১২ হাজার পেজ চালাচ্ছেন নারীরা। সেই হিসেবে ঠাকুরগাঁও জেলায় কম নয়। ঠাকুরগাঁও অনলাইন উদ্যোক্তা পরিবার এমনি একটি অনলাইন বিজনেস প্লাটফর্ম। ১৪'ই মে ২০২০ সালে এর যাত্রা শুরু হয়। মাত্র ৮ মাসেই এই অনলাইন গ্রুপটি থেকে তৈরি হয়েছে শতাধিক নারী উদ্যোক্তা। গ্রুপের মেম্বার সংখ্যা এখন ২৩ হাজারেরো বেশি। এর মধ্যে প্রায় তিনশো জনের অধিক বিক্রেতা এবং বাকী সবাই ক্রেতা। গ্রুপ পরিচালনা করছেন ছয়জন নারী। গ্রুপ এডমিন সানজিদা শারমিন সেতু। তার সহযোগী হিসেবে আছেন ৫ জন মডারেটর মারিয়া মিতু, মায়িশা শারমিন মিম, শাবনাজ শান্তা, অপর্না আক্তার মিমু এবং ফারিহা ওয়াদুদ। গ্রুপের এডমিন সানজিদা শারমিন সেতু জানান নারীরা ঘরে বসে অনলাইন প্লাটফর্ম...
‘তৃতীয় লিংগ’ কথাটি কেন বলি আমরা?
সোস্যাল মিডিয়া

‘তৃতীয় লিংগ’ কথাটি কেন বলি আমরা?

মারজিয়া প্রভা :: সরকারি বেসরকারি এনজিও প্রতিষ্ঠানগুলোতে তৃতীয় লিংগ অহরহ কথাটি ব্যবহৃত হয়। আমরা জনমানুষও এই শব্দটি ব্যবহারে অপ্রয়োজন দেখি না! এমনকি যারা জেন্ডার বৈচিত্র‍্যময় আইডেন্টিটির অধিকারী তারাও এই শব্দ চয়ন করে থাকেন। কিন্তু সত্যিই কি এই শব্দ ব্যবহারে আমরা সমস্যা দেখি না? গতকাল সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রশংসায় সয়লাব হয়েছিল, তৃতীয় লিংগের ভারতীয় ভি এস প্রিয়া ডাক্তার হয়েছেন! কিন্তু কোন নারী বা পুরুষ যদি এই ক্ষেত্রে প্রথম এরকমম কিছু করতেন আমরা কি লিখতাম, দ্বিতীয় লিংগের কেউ প্রথম এই কাজ করল বা প্রথম লিংগের কেউ একজন এই কাজটি করল? লিখতাম না নিশ্চয়ই! কারণ নারী পুরুষের সহজাত জেন্ডার আইডেন্টিটিকে স্বাভাবিকভাবে গ্রহণ করলেও, আমরা ইতস্তত হই এর বাইরের কোন জেন্ডার আইডেন্টিটিতে। তাই আমরা নারী পুরুষের বাইরে অন্য যেকোন জেন্ডার আইডেন্টিটিকে একত্রে তৃতীয় লিংগ বলে ফেলি! এই সরলীকরণ করা মানে, সব জেন্...
সত্যেন সেন: মৃত্যুহীন প্রাণ
শিল্প ও সাহিত্য, সোস্যাল মিডিয়া

সত্যেন সেন: মৃত্যুহীন প্রাণ

সঙ্গীতা ইমাম:: বাংলাদেশ উদীচী শিল্পীগোষ্ঠীর প্রতিষ্ঠাতাদের অন্যতম, লেখক, সাংবাদিক, রাজনীতিক, সংগঠক সত্যেন সেনের প্রয়াণদিবস আজ । ১৯৮১ সালের ৫ জানুয়ারি তিনি মৃত্যুবরণ করেন। কিন্তু যে মানুষের জীবনের প্রতিটি মুহূর্ত মানুষের জন্য, সমাজের জন্য, মানুষের মুক্তির জন্য, তাঁর দৈহিক মৃত্যু হলেও আদর্শের অনির্বাণ শিখা সদা দীপ্যমান। তাই আজও প্রতিটি লড়াই-সংগ্রামে, আমাদের অর্জন আর ত্যাগে সত্যেন সেন আমাদের অনুপ্রেরণা, আমাদের ভবিষ্যতের পাথেয়। আজীবন সংগ্রামী সত্যেন সেন ১৯০৭ সালের ২৮ মার্চ বিক্রমপুরের (বর্তমান মুন্সিগঞ্জ জেলার) টঙ্গিবাড়ী উপজেলার সোনারং গ্রামের সেন পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পুরো নাম সত্যেন্দ্রমোহন সেন। ডাকনাম লংকর। বাবার নাম ধরণীমোহন সেন। মাতা মৃণালিনী সেন। চার সন্তানের মধ্যে সত্যেন সেন ছিলেন সর্বকনিষ্ঠ। সোনারং সে সময়ে একটি বর্ধিষ্ণু গ্রাম এবং শিক্ষা-দীক্ষা, ব্যবসা-বাণিজ্য, শিল্...
বন্ধু আয়শা তোমাকে জানাই রক্তিম সালাম
মতামত, সোস্যাল মিডিয়া

বন্ধু আয়শা তোমাকে জানাই রক্তিম সালাম

শেখর দত্ত :: লিখতে বসেই ভাবলাম করোনাকালে হেডিংটা পাল্টিয়ে ‘সকালের বিষাদময় ভাবনা’ শব্দটা বসাবো কি না। ইচ্ছে করেই পাল্টালাম না। বিষাদে থাকতে চাই না। তবে প্রিয় সাথী-সহকর্মী বন্ধুদের মৃত্যুর খবর কেন যেন কেবল সকালেই পাচ্ছি। প্রিয় বন্ধু আয়শার খবরও পেলাম সকালেই। ‘যার হয় ক্যানসার/তার নাই আনসার’ কথাটা আয়শার জীবনে সত্য হয়ে উঠলো। ছোট ছেলে অতনুকে টেলিফোন করে প্রতি রাতে ঘুমাতে যাই। আভা বলে, ওর সাথে কথা বললে ঘুম ভাল হয়। গতরাতে ওকে টেলিফোনে পাইনি। বিছানা ছেড়ে উঠেই বলল, ‘অন্তুকে টেলিফোন কর।’ কিন্তু বিছানা ছেড়ে উঠতে ইচ্ছে করছিল না। ক্রমে লাল হওয়া পুবের আকাশের দিকে তাকিয়ে অবাক বিস্ময়ে আকাশ-পাতাল, অতীত-বর্তমান ভাবছিলাম। বিছানা সবে ছেড়েছি। বন্ধু মুকুল চৌধুরীর ফোন, ‘আয়শা নেই।’ দুজনের কেউ-ই কথা বলতে পারছিলাম না। বাসাটায় যেন কবরের নীরবতা। গৃহকর্মী রাহেলারও প্রিয় আয়শা। বাসায় কখনও এলে আয়শা ওর সাথে কথা বলতো। ...
‘বিপ্লব কারো বাপ দাদার সম্পত্তি নয়’
সাব লিড, সোস্যাল মিডিয়া

‘বিপ্লব কারো বাপ দাদার সম্পত্তি নয়’

নাসির উদ্দিন প্রিন্স :: ভোট ডাকাতির দুই বছর উপলক্ষে ৩০ ডিসেম্বর বাম গণতান্ত্রিক জোট এর প্রধানমন্ত্রী কার্যালয় অভিমুখে কালো পতাকা মিছিলের কর্মসূচী ছিল। পল্টন মোড়ে জমায়েত হয়ে মিছিল নিয়ে আগালে পুলিশ মৎস্য ভবনের সামনে বাধা দেয়, সে বাধা ডিঙ্গিয়ে এগোলে শাহবাগ মোড়ের আগে আবার বাধা দিলে প্রায় ১৫ মিনিট সেখানে পুলিশের সাথে ধ্বস্তাধ্বস্তি হয়। পুলিশের ব্যারিকেড ভেঙ্গে শাহবাগ মোড়ে মিছিল নিয়ে গিয়ে সমাবেশ হয়। সেখান থেকে নির্বাচন কমিশনারের পদত্যাগের দাবিতে আগামী ৬ জানুয়ারি নির্বাচন কমিশনের সামনে অবস্থান এর কর্মসূচীর ঘোষণা আসে। আবারও বলে রাখি বাম জোট প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় অভিমুখে মিছিলের কর্মসূচী দিয়েছিল প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় দখলের কর্মসূচী দেয়নি। দেশের একটি প্রধান সারির দৈনিকে এ নিয়ে খবর প্রকাশ করে লিখলেন নেতাদের সমর্থন না পেয়ে নাকি বামজোটের কর্মীরা এগোতে পারেনি। আর এখবর দেখেই এদেশের কামেল সমাজ য...
‘বেশ্যা ও বিদুষীর গল্প’
সোস্যাল মিডিয়া

‘বেশ্যা ও বিদুষীর গল্প’

আফরোজা সোমা:: আমার নারী বিষয়ক প্রবন্ধগ্রন্থ 'বেশ্যা ও বিদুষীর গল্প' কথা প্রকাশ থেকে ২০২১-এর বইমেলায় বের হবার কথা ছিল। এই মর্মে প্রকাশকের সাথে চূড়ান্ত বৈঠক হয় ২৮শে নভেম্বর। বইয়ের কন্টেন্ট, প্রচ্ছদ, মার্কেটিং ইত্যাদি নানান প্রসঙ্গ উঠে আসে দীর্ঘ বৈঠকে। বইয়ের নাম নিয়েও লম্বা আলাপ চলে। কেন এই নাম? কী এর শানে নুযুল? মানুষ এই নাম কীভাবে নিবে? ইত্যকার প্রশ্ন এসেছে শিরোনাম ঘিরে। বইয়ের ব্যাক কাভারে যে লেখা যাবার কথা সেটিও ওই বৈঠকে বসেই আরেকবার আমাকে দিয়ে এডিট করিয়ে নেন প্রকাশক। সাইনিং-মানি বা সম্মানি হিসেবে আমাকে দেয়া হয় একটি অংক। লেখক হিসেবে অর্থপ্রাপ্তি স্বীকার করে কথা প্রকাশের প্যাডে আমাকে দু’লাইন লিখে স্বাক্ষর করে দিতে বলেন প্রকাশক। অর্থ গ্রহণ করে সানন্দে স্বাক্ষর করেছি। কিন্তু গত সপ্তাহ খানেক আগে প্রকাশক আমাকে ফোন করে বইয়ের নামটি পাল্টাতে অনুরোধ করেন। নাম পাল্টানোর কারণ হিসেব...
ফ্যাক্টঃ বার কাউন্সিল লিখিত পরীক্ষা
সোস্যাল মিডিয়া

ফ্যাক্টঃ বার কাউন্সিল লিখিত পরীক্ষা

দিলরুবা নূরী:: ক্লান্ত চরণ আকুল আঁধারে পথ শুধু খুঁজে মরে কি আশায় বাঁধি খেলা ঘর বেদনার বালুচরে এখনো যেন একটা ঘোরের মধ্যে আছি। কী দেখলাম! ঘটল কি, কিভাবে? সবই কেমন যেন আচমকা ঘটে গেল বলে মনে হলো। কিন্তু বাস্তবে কি তাই? আমার সীট ছিল ঢাকা মহানগর মহিলা কলেজে।পরীক্ষার্থী ৫৩ জন ছিল আমার রুমে। আমাদের খাতা নিয়ে একজন শিক্ষক এলেন, দূর থেকেই দেখে রুমে একটা গুঞ্জন উঠলো, এবারো ও এম আর শীট নাই খাতায়। একটু পর একজন ম্যাডাম এসে যাদের মোবাইল আছে সামনে জমা দিতে বললেন। তার কিছুক্ষণ পর খাতা দেয়া হলো। সবাই খাতার প্রয়োজনীয় কাজ সেরে অপেক্ষা করছে প্রশ্নপত্রের জন্য। ঠিক ৯টাতেই ঘন্টা বাজলে প্রশ্নপত্র দেয়া হলো। আমি প্রশ্নগুলোতে চোখ বুলিয়ে নিচ্ছি, উপর থেকে দেখতে দেখতে সাক্ষ্য আইনের প্রশ্ন দেখছি, ঠিক সেই সময়ই অন্য হল থেকে একটা হই হই শব্দ এলো আর সাথে সাথে আমাদের হলের ম্যাক্সিমাম পরীক্ষার্থীও হই দিয়ে উঠল--এটা কোনো...
বিজয়ের অর্ধশত: বাংলাদেশ কোন পথে!
সোস্যাল মিডিয়া

বিজয়ের অর্ধশত: বাংলাদেশ কোন পথে!

অনুপম দেব কানুনজ্ঞ :: বিজ্ঞান বলুন, ধর্ম বলুন বা রাজনীতি-সংস্কৃতি-দর্শনই বলুন, সবই ক্রমশ পরিবর্তনশীল৷ মানবজাতির ইতিহাসে যত নতুন নতুন সংকট আসছে, সেগুলো থেকে শিক্ষা নিয়েই মানুষ আগানোর চেষ্টা করছে৷ রাজনীতির কথাই ধরুন৷ সংখ্যাগরিষ্ঠ হিন্দুদের চাপে ব্রিটিশ ভারতে মুসলিমরা যখন নিজেদের অস্তিত্ব সংকটে, তখন অধিকার আদায়ের বাস্তবতা থেকে এই ঢাকাতেই গঠিত হয় নিখিল ভারত মুসলিম লীগ৷ সেই দলের নেতা মুহাম্মদ আলী জিন্নাহই দ্বিজাতি তত্ত্বের প্রস্তাবনা করে মুসলিমদের জন্য আলাদা রাষ্ট্র- পাকিস্তান প্রতিষ্ঠা করেন৷ কিন্তু কেবল ধর্মীয় পরিচয়ে যে একটি জাতি গঠন করা অসম্ভব তা খুব দ্রুতই টের পান বাঙালি রাজনীতিবিদরা৷ মুসলিমদের আন্দোলনের কেন্দ্র ঢাকা থেকে সরে চলে যায় লাহোর-করাচি-ইসলামাবাদে৷ ফলে পাকিস্তান স্বাধীন হওয়ার দুই বছরের মধ্যে বাঙালি মুসলিমদের অধিকার আদায়ের জন্য আলাদা দল- আওয়ামী মুসলিম লীগ প্রতিষ্ঠা করতে ...