"> আবরার হত্যাকান্ড: বুয়েট অভিমুখে ঢাবি শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের কালো পতাকা মিছিল
 

আবরার হত্যাকান্ড: বুয়েট অভিমুখে ঢাবি শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের কালো পতাকা মিছিল

Pronob paul 9:28 am লিড নিউজ,
Home  »  ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ব্রেকিং নিউজলিড নিউজ   »   আবরার হত্যাকান্ড: বুয়েট অভিমুখে ঢাবি শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের কালো পতাকা মিছিল

ঢাবি প্রতিনিধি :: বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদের হত্যার প্রতিবাদে বুয়েট অভিমুখে কালো পতাকা মিছিল করেছে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ।

বুধবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের সামনে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশের পর এই কালো পতাকা মিছিল শুরু হয়। মিছিলটি বুয়েট ও শহীদ মিনার ঘুরে ফের রাজু ভাস্কর্যে এসে শেষ হয়।

মিছিলে ডাকসুর ভিপি নুরুল হক নুরসহ বাংলা‌দেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ প‌রিষদ এবং বিভিন্ন বাম ছাত্র সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

কালো পতাকা মিছিল শুরুর আগের সংক্ষিপ্ত সমাবেশে যোগ দিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক আসিফ নজরুল বলেন, আবরার যে কথাগুলো ফেসবুক পোস্টে লিখে গেছে সেগুলো শিবিরের বক্তব্য না, সেগুলো দেশপ্রেমিক মানুষের কথা।

কালো পতাকা মিছিলটি বুয়েট ক্যাম্পাসে যাওয়ার পর সেখানে বক্তব্য রাখেন ভিপি নূর। তিনি বলেন, রাতে আবরার ফাহাদকে হত্যার পরে সকাল পর্যন্ত খুনীরা কিভাবে হলে ছিল, প্রশাসনকে সেই জবাব দিতে হবে। এর সঙ্গে জড়িত শিক্ষক এবং কর্মচারীদের বহিষ্কার করতে হবে।

এ সময় আবরার হত্যা মামলা দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে স্থানান্তরেরও দাবি জানান তিনি। বুয়েট শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে নূর বলেন, আপনারা কোনোভাবেই আন্দোলন বন্ধ করবেন না। এ ধরনের আন্দোলনের ক্ষেত্রে অতীতে দেখা গেছে, প্রশাসন মিষ্টি মিষ্টি কথা বলে শিক্ষার্থীদের সরিয়ে দেয়। পরে আর কোনো ফলাফল পাওয়া যায় না। আপনারা ভয় পাবেন না, আমরা সব সময় আপনাদের সাথে আছি।

উল্লেখ্য, বুয়েটের ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যা করেন ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীরা। রবিবার মধ্যরাতে বুয়েটের শেরে বাংলা হলের নিচতলা ও দোতলার মাঝামাঝি সিঁড়ি থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে গতকাল সোমবার বুয়েট ছাত্রলীগের ১৩ নেতা-কর্মীকে আটক করেছে পুলিশ।

ফাহাদ হত্যাকাণ্ডে ১৯ জনকে আসামি করে গতকাল রাতে চকবাজার থানায় মামলা করেছেন তার বাবা বরকতুল্লাহ। এ ঘটনায় তদন্ত কমিটি ও চকবাজার থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

এদিকে ওই ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় বুয়েট শাখার ১১ জন নেতা-কর্মীকে স্থায়ী বহিষ্কার করেছে ছাত্রলীগ।

আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, ফেনী নদীর পানি বণ্টন ও বন্দর ব্যবহারসহ ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের বিভিন্ন চুক্তির সমালোচনা করে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেওয়ায় শিবির সন্দেহে তাকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়।