রবিবার, নভেম্বর ২৯

২০২১ সালের বিশ্বকাপ ভারত না হলে, শ্রীলঙ্কা-আমিরাতে হতে পারে

এখানে শেয়ার বোতাম

অধিকার ডেস্ক:: আইসিসি সভাশেষে নির্ধারিত হয়েছে ২০২০ সালের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ হবে না এ বছর। বরং এক বছর পিছিয়ে হবে ২০২১ সালের একই সময়ে। আর এ কারণে ২০২১ সালের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ হবে ২০২২ সালে। এ সিদ্ধান্ত নেয়ার সময় বিশ্বকাপের ভেন্যুও অদলবদল করে দিয়েছে আইসিসি।

প্রাথমিকভাবে ২০২০ সালের বিশ্বকাপের স্বাগতিক ছিল অস্ট্রেলিয়া। ফলে বিশ্বকাপটি ২০২১ সালে পিছিয়ে যাওয়ায় তাদেরই হওয়ার কথা ছিল আয়োজক। কিন্তু তা না করে অস্ট্রেলিয়াকে দেয়া হয়েছে ২০২২ সালের বিশ্বকাপ আয়োজনের দায়িত্ব এবং ২০২১ সালের বিশ্বকাপের আয়োজক করা হয়েছে ভারতকে।

কিন্তু ততদিনেও যদি ঠিক না হয় ভারতের করোনা পরিস্থিতি? বিশ্বকাপ কি পিছিয়ে যাবে আরও এক বছর? নাকি বাতিলই করে দেয়া হবে বিশ্বকাপের এই আসর? আপাতত এমন কিছুই ভাবছে না আইসিসি। বরং ভারতে না হলে ২০২১ সালের বিশ্বকাপের ব্যাকআপ ভেন্যু হিসেবে শ্রীলঙ্কা ও আরব আমিরাতকে প্রস্তুত রাখবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি।

ক্রিকেটের জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ক্রিকইনফো জানিয়েছে এ খবর। বর্তমানে প্রায় ২০ লাখের বেশি করোনা রোগী রয়েছে ভারতে। দেশটিতে এ মহামারিতে প্রাণহানির সংখ্যা ৪৫ হাজার ছাড়িয়েছে। যে কারণে এরই মধ্যে আইপিএল সরিয়ে নেয়া হয়েছে আরব আমিরাতে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ব্যাপারেও নেয়া হতে পারে এমন সিদ্ধান্ত।

ক্রিকইনফোর পক্ষ থেকে যোগাযোগ করা হয়েছিল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) সৌরভ গাঙ্গুলির সঙ্গে। তিনি জানিয়েছেন এখনও কোনো সাড়া দেয়নি ব্যাকআপ ভেন্যুগুলো। এদিকে বিসিসিআইও ২০২২ সালের পরিবর্তে ২০২১ সালের বিশ্বকাপটিই নিজেদের দেশে আয়োজন করতে চায়। কেননা ২০২৩ সালে রয়েছে ওয়ানডে বিশ্বকাপ এবং আইপিএল।


এখানে শেয়ার বোতাম