মঙ্গলবার, নভেম্বর ২৪

লাশ ফেলে যাওয়ার সময় জনতার হাতে প্রেমিক আটক

এখানে শেয়ার বোতাম
  • 269
    Shares

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি :: হবিগঞ্জ-বানিয়াচং সড়কের পাশে প্রেমিকার লাশ ফেলে চলে যাওয়ার সময় ঘাতক প্রেমিককে আটক করেছে জনতা। খবর পেয়ে লাশ উদ্ধারসহ আটক অনিককে গ্রেফতার করেছে বানিয়াচং থানা পুলিশ।

২৪ অক্টোবর শনিবার বিকালে এ ঘটনা ঘটেছে। নিহত জোনাকী (২১) উপজেলা সদরের রঘু চৌধুরী পাড়া গ্রামের আবু মিয়ার মেয়ে ও কুতুবখানী গ্রামের অপু মিয়ার স্ত্রী। নিহত জোনাকীর তন্নী নামে আড়াই বছর বয়সী এক মেয়ে ও বায়জীদ নামে ৬ বছর বয়সী এক ছেলে রয়েছে।

আটক ঘাতক প্রেমিকের নাম অনিক পান্ডে (৩১)। সে একই উপজেলার কাষ্টগড় গ্রামের মৃত মৃনাল ওরফে মানিক পান্ডের পুত্র।

নিহতের মা হেনা বেগম জানান, প্রায় দেড়মাস পূর্বে স্বামী ও পুত্র সন্তানকে রেখে কন্যা সন্তানসহ জোনাকী প্রেমিক অনিক পান্ডের হাত ধরে পালিয়ে যায়।

শনিবার বিকাল অনুমান আড়াই/৩টার দিকে হেনা বেগমকে অনিক ফোন করে জানায়, তার মেয়ে জোনাকী সিলিং ফ্যানের আঘাতে মারা গেছে। সে এ্যাম্বুলেন্সে করে লাশ পাঠাচ্ছে। এর কিছুক্ষনের মধ্যে হবিগঞ্জ-বানিয়াচং সড়কে চলাচলকারী যাত্রী সাধারনের দৃষ্টিগোচর হয় যে একটি ছোট মেয়ের পাশে একজন মহিলার লাশ পড়ে রয়েছে। ওই সময় এ্যাম্বুলেন্সের চালক লাশ রেখে চলে যায়। অভিযুক্ত অনিক পান্ডে পাশবর্তী খাল পেরিয়ে চলে যাওয়ার সময় এলাকাবাসী আটক করে পুলিশের হাতে সোপর্দ করে।

এ ব্যাপারে নিহতের মা হেনা বেগম জানান, সে আমার মেয়ের ও তার সন্তানদের জীবন নষ্ট করেছে। আমি আমার মেয়ে হত্যার বিচার চাই।

এ ব্যাপারে বানিয়াচং থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোঃ এমরান হোসেন গনমাধ্যমকর্মীদের বলেন, লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। লাশের ময়নাতদন্ত করা হবে। অভিযুক্ত অনিককে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।


এখানে শেয়ার বোতাম
  • 269
    Shares