রবিবার, মে ১৬
শীর্ষ সংবাদ

মাগুরায় শ্বাসকষ্টে মৃত যুবকের মরদেহ তড়িঘড়ি করে দাফন

এখানে শেয়ার বোতাম

অধিকার ডেস্ক:: ঢাকায় শ্বাসকষ্টে মৃত এক যুবকের মরদেহ তার গ্রামের বাড়ি মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলার বিনোদপুরে তড়িঘড়ি করে দাফন করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে ১২টায় মুক্তার মোল্লা (৩৫) নামে এক যুবকের মরদেহ দাফন করা হয়। এর আগে ঢাকা থেকে অ্যাম্বুলেন্সযোগে মরদেহ আসার সাথে-সাথে অল্প মানুষের উপস্থিতে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

মুক্তার মোল্লা বিনোদপুর গ্রামের আহম্মদ মোল্লার ছেলে। তিনি ঢাকায় কর্মরত ছিলেন।

বিনোদপুর ইউপি চেয়ারম্যান মিজান শিকদার জানিয়েছেন, মুক্তার শ্বাসকষ্ট নিয়ে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ভোরে মারা যান। তিনি টিবি রোগে আত্রান্ত ছিলেন। এ অবস্থায় হার্ট এ্যাটাকে তার মৃত্যু হয়েছে বলে পরিবারের সদস্যরা তাকে জানিয়েছেন। এখানকার পরিস্থিতি বিবেচনায় দুপুর ১২টার সময় তার মরদেহ ঢাকা থেকে বিনোদপুর আসার সাথে-সাথে দ্রুত দাফনের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এর আগে দূরত্ব বজায় রেখে অল্প কিছু মানুষের উপস্থিতিতে জানাজা হয়েছে।

মহম্মদপুর থানার ওসি তারক নাথ বিশ্বাস বলেন, স্বাস্থ্য বিভাগের সাথে তাদের কথা হয়েছে। তাদের নির্দেশানুযায়ী বেশি মানুষের ভিড় এড়াতে জানাজা ও দাফনের সময় ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছিলো।

মুক্তার আগে থেকে টিউবারক্লোসিস (টিবি) রোগে আক্রান্ত ছিল কিনা বিষয়টি জানার জন্য একাধিকবার তার ভাই শুকুর মোল্লার সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করলেও তাকে পাওয়া যায়নি।

সিভিল সারর্জন প্রদীপ কুমার সাহা জানান, তিনি বিষয়টি শুনেছেন। জেলা প্রশাসকের সঙ্গে কথা হয়েছে। নিহতদের পরিবার, প্রতিবেশী, জানাজায় অংশ্রগ্রহণকারী, মরদেহ দাফনের সঙ্গে সংশ্লিষ্টদের হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হবে।

জেলা প্রশাসক ড. আশরাফুল আলম বলেন, টিবি রোগ, শ্বাসকষ্ট ও পরে হার্ট এ্যাটাকে মৃত্যু হয়েছে বলে, তিনি ইউএনওর কাছ থেকে জানতে পেরেছেন। তাছাড়া মৃত ব্যক্তিকে ঢাকা থেকে গোসল করিয়ে আনা হয়েছে। এখানে এনেই তাৎক্ষণিকভাবে করব দেওয়া হয়েছে। যে কারণে ভয়ের কিছু নেই। তবে যারা মরদেহটি আনা নেওয়া ও কবরস্থ করেছেন, তাদের হোম কোয়ারেইনটাইনের রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।


এখানে শেয়ার বোতাম