শুক্রবার, এপ্রিল ১৬
শীর্ষ সংবাদ

মহাসড়কে তীব্র যানজট

এখানে শেয়ার বোতাম

অধিকার ডেস্ক :: ঈদুল আজহা উপলক্ষে নাড়ির টানে বাড়ি ফেরার তাগিদ থাকা অসংখ্য মানুষ রাজধানী ছেড়ে ছুটছেন গন্তব্যে।ঘরমুখো মানুষের ভিড়ে যেন জনস্রোত তৈরি হয়েছে ঢাকার সড়ক, রেল আর নৌপথে।

পরিবারের স্বজনদের সঙ্গে ঈদুল আযহার আনন্দ ভাগাভাগি করতে দুই একদিন আগে থেকেই ঢাকা ছাড়তে শুরু করেছে নগরবাসী।

রাজধানীর গাবতলী, মহাখালী ও সায়েদাবাদসহ আরও কয়েকটি বাসস্ট্যান্ড, কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন আর সদরঘাটে এখন শুধু মানুষ আর মানুষ। বাড়তি মানুষের চাপে যানবাহন চলছে ধীরগতিতে। কিছু যানবাহনে সুযোগ বুঝে বাড়তি ভাড়া আদায় করার অভিযোগ পাওয়া যাচ্ছে।

ঢাকার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে নিজ নিজ গন্তব্যের উদ্দেশে ভোর থেকে রওনা হয়েছে মানুষ; সূর্যের আলো ছড়িয়ে পড়ার সঙ্গে সঙ্গে মানুষের সংখ্যাও বেড়েছে। স্বজনদের সঙ্গে নিয়ে বাড়ি যাচ্ছেন অনেকে; কেউ কেউ আবার স্ত্রী-সন্তানকে দুই একদিন আগেই পাঠিয়ে দিয়েছেন।


অতিরিক্ত যানবাহনের চাপে টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার পাকুল্লা এলাকা থেকে বঙ্গবন্ধু সেতু পর্যন্ত ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে প্রায় ৪০ কিলোমিটার যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এর ফলে ধীরগতিতে থেমে থেমে চলছে যানবাহন।

এই যানজটের কারণে চরম দুর্ভোগে পড়েছেন দূরপাল্লার যাত্রীরা। এ ছাড়া মহাসড়কের পাকুল্লা, করটিয়া বাইপাস, নগরজলফৈই, রাবনা বাইপাস ও এলেঙ্গায় যানজট পাঁচ থেকে সাত কিলোমিটার পর্যন্ত দীর্ঘ হচ্ছে।

অতিরিক্ত যানবাহনের পাশাপাশি বঙ্গবন্ধু সেতু থেকে সিরাজগঞ্জের হাঁটিকুমরুল মোড় পর্যন্ত গাড়ি টানতে না পারার কারণে এই যানজটের সৃষ্টি হচ্ছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

আজ শনিবার সকালে হাইওয়ে পুলিশের সার্জেন্ট ইফতেখার নাসির রোকন জানান, এলেঙ্গা থেকে মির্জাপুর পর্যন্ত ধীরগতিতে যানবাহন চলাচল করছে। যানজট নিরসনে পুলিশ কাজ করছে বলেও জানান তিনি।


এখানে শেয়ার বোতাম