শুক্রবার, ডিসেম্বর ৪

ভিন্ন আবহে ঈদুল আজহা উদ্‌যাপিত হবে আজ

এখানে শেয়ার বোতাম

অধিকার ডেস্ক:: করোনা পরিস্থিতিতে এবার ভিন্ন আবহে শনিবার ১০ জিলহজ উদ্‌যাপিত হতে যাচ্ছে ঈদুল আজহা। আমাদের দেশে এই ঈদ কোরবানির ঈদ নামেই পরিচিত।

করোনা মহামারির মধ্যে গত ঈদে (ঈদুল ফিতর) চিরচেনা উৎসব চোখে পড়েনি। তবে এবারের চিত্র গত বারের তুলনায় ভিন্ন। শেষ মুহূর্তে রাজধানীর পশুর হাট, শপিংমল, বাজারে ভিড় লক্ষ্য করা গেছে।

ঈদুল আজহা আসে আত্মত্যাগের মহিমা নিয়ে। সামর্থ্যবান প্রত্যেক নর-নারীর জন্য এই ঈদে পশু কোরবানি করা ওয়াজিব। ধর্মীয় বিধান অনুসারে ঈদের দুই দিন পর অর্থাৎ ১১ ও ১২ জিলহজ তারিখেও কোরবানি করা যায়।

পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক বাণী দিয়েছেন। বাণীতে তারা দেশবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানানোর পাশাপাশি মুসলিম উম্মাহর শান্তি ও কল্যাণ কামনা করেছেন।

সরকারিভাবে ঘোষণা দেওয়া হয়েছে, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধের জন্য ঈদগাহে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে না। মসজিদগুলোতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। গত ঈদুল ফিতরেও ঈদগাহে নামাজের ব্যবস্থা করা হয়নি।

ঈদের জামাত:

রাজধানীতে এবার জাতীয় ঈদগাহে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে না। ইসলামিক ফাউন্ডেশনের জনসংযোগ বিভাগ জানিয়েছে, জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে এবার ঈদের ছয়টি জামাত অনুষ্ঠিত হবে। প্রথম জামাত হবে সকাল ৭টায়। এর ইমামতি করবেন জাতীয় মসজিদের জ্যেষ্ঠ পেশ ইমাম হাফেজ মুফতি মওলানা মো. মিজানুর রহমান। দ্বিতীয় জামাত ৭টা ৫০ মিনিটে, তৃতীয় জামাত ৮টা ৪৫ মিনিটে, চতুর্থ জামাত ৯টা ৩৫ মিনিটে, পঞ্চম জামাত সাড়ে ১০টা এবং শেষ জামাত বেলা ১১টা ১০ মিনিটে অনুষ্ঠিত হবে।

এ ছাড়া রাজধানীর বিভিন্ন পাড়া-মহল্লার মসজিদগুলোতেও স্বাস্থ্যবিধি মেনে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে।


এখানে শেয়ার বোতাম