শুক্রবার, মার্চ ৫
শীর্ষ সংবাদ

ভারতের সঙ্গে দর কষাকষির সক্ষমতা নেই সরকারের: মির্জা ফখরুল

এখানে শেয়ার বোতাম

অধিকার ডেস্ক :: বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, দর-কষাকষির সক্ষমতা নেই বলেই সরকার ভারতের সঙ্গে অমীমাংসিত সমস্যার সমাধান করতে পারছে না। আওয়ামী লীগ শুধুমাত্র ক্ষমতায় থাকার জন্য ভারতের সঙ্গে ন্যায্য কথাও বলতে পারছে না। সেই শক্তি তাদের নেই। কারণ তারা ক্ষমতায় টিকে থাকার জন্য ভারতের ওপর নির্ভরশীল। তাই এ সরকার যতদিন থাকবে ততই বাংলাদেশের স্বার্থ ক্ষুণ্ন হবে।

শনিবার রাজধানীর হোটেল পূর্বানীতে অ্যাসোসিয়েশন অব ইঞ্জিনিয়ার্স, বাংলাদেশ (এ্যাব) এর উদ্যোগে ‘ফেনী নদীর পানি প্রত্যাহার চুক্তি: বাংলাদেশের সম্ভাব্য বিপর্যয়’ শীর্ষক সেমিনারে তিনি এসব বলেন। এতে রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রুয়েট) পুরকৌশল বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. আখতার হোসেন তথ্যচিত্রের মাধ্যমে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, দেশের অর্থনীতির অবস্থা একদম ভঙ্গুর হয়ে পড়েছে। খুব বড়াই করে সরকার বলছে যে, বাংলাদেশ উন্নয়নের রোল মডেল, সেই রোল মডেল এখন শুধুমাত্র ঋণের ওপরে তাদেরকে টিকে থাকতে হচ্ছে। সব ব্যাংক ফোকলা হয়ে গেছে। ব্যাংকগুলো থেকে এমনভাবে ঋণ নিয়েছে যে কিভাবে শোধ করবে এটা জানি না। অর্থনীতিবিদরা অনেকে বলেই ফেলছেন, অর্থনীতির ভবিষ্যত খারাপ।

তিনি বলেন, গার্মেন্টসের রপ্তানি বহু কমে গেছে। বহু গার্মেন্টস ফ্যাক্টরি বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। ভিয়েতনাম এগিয়ে যাচ্ছে। ম্যানুফ্যাকচারড ইন্ডাষ্ট্রিজ আজকে বাংলাদেশে হচ্ছে না। কৃষকরা ধানের দাম পায় না, ধান উৎপাদন করা বাদই দিয়ে দিয়েছে প্রায়। তাহলে স্বয়ংসম্পূর্ণতা থাকবে কি করে? এই অবস্থা থেকে উত্তরণে সরকার পরিবর্তনের কোনো বিকল্প নেই। এই সরকারকে সরাতে হবে। তাদেরকে সরাতে হলে একটা জাতীয় ঐক্য সৃষ্টি করতে হবে। সব দলমত নির্বিশেষে সবাইকে এক করে সরকারকে সরাতে হবে।

অ্যাসোসিয়েশন অব ইঞ্জিনিয়ার্স, বাংলাদেশ (এ্যাব) এর ভারপ্রাপ্ত সভাপতি প্রকৌশলী রিয়াজুল ইসলাম রিজুর সভাপতিত্বে সেমিনারে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অধ্যাপক এজেডএম জাহিদ হোসেন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।


এখানে শেয়ার বোতাম