শুক্রবার, এপ্রিল ১৬
শীর্ষ সংবাদ

ব্ল্যাক হোলের ছবি তুলে বিজ্ঞানের অস্কারে ভূষিত

এখানে শেয়ার বোতাম

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ::ইতিহাস গড়ে ৫ কোটি ৫০ লক্ষ আলোকবর্ষ দূরে (ম্যাসিয়ার ৮৭-গ্যালাক্সির কেন্দ্রে) অবস্থিত কৃষ্ণগহ্বর (ব্ল্যাকহোল)-এর ছবি তুলেছিলেন একদল বিজ্ঞানী। সেই বেনজির কৃতিত্বের জন্য ফান্ডামেন্টাল ফিজিক্সে ব্রেকথ্রু পুরস্কারে সম্মানিত হতে চলেছেন তাঁরা। পোশাকি নাম ‘অস্কার অব সায়েন্স’ বা বিজ্ঞানের অস্কার। পুরস্কার মূল্য ৩০ লক্ষ মার্কিন ডলার। সম্প্রতি ওয়াশিংটনে পুরস্কার কমিটির তরফে এ খবর ঘোষণা করা হয়েছে।

হাভার্ড-স্মিথসোনিয়ান সেন্টার ফর অ্যাস্ট্রোফিজিক্সের শেপ ডোয়েলম্যানের নেতৃত্বে ৩৪৭ জন বিজ্ঞানী এই প্রকল্পে অংশ নিয়েছিলেন। নাম ছিল, ‘দ্য ইভেন্ট হরাইজন টেলিস্কোপ কোলাবরেশন’। প্রায় এক দশকের বেশি সময় ধরে কঠোর পরিশ্রমের পর চলতি বছরের ১০ এপ্রিল এই দুষ্প্রাপ্য ছবি প্রকাশ্যে আনেন ওই টিমের সদস্যরা। তারই স্বীকৃতিস্বরূপ আগামী ৩ নভেম্বর ক্যালিফোর্নিয়ার নাসা এমস রিসার্চ সেন্টারে বিজ্ঞানের অস্কারে ভূষিত হবেন তাঁরা।

পদার্থ বিদ্যার পাশাপাশি, জীবন বিজ্ঞান ও অঙ্কেও বিশেষ অবদানের জন্য এই পুরস্কার প্রদান করা হয়। স্বাভাবিকভাবেই এই শিরোপা পেয়ে বেজায় খুশি শেপ ডোয়েলম্যান। তাঁর কথায়, ‘আমরা একদিন কৃষ্ণগহ্বরের ছবি তুলব, একথা বহু বছর ধরে সকলকে বলে আসছি। কেউই বিশ্বাস করতে চাইত না। সবাই বলত, আগে চোখে দেখব, তারপর বিশ্বাস করব। কিন্তু, যখন আমরা সফল হলাম, মনে হচ্ছিল একেবারে নতুন এক জগতের জন্ম দিলাম।’

ফেসবুক প্রোফাইলে কৃষ্ণগহ্বরের একটি ছবি আপলোড করেছেন ড. কেটি বুম্যান। ল্যাপটপে ছবিটি দেখে নিজেই অবাক হচ্ছেন এমন মুহূর্ত শেয়ার করে তিনি লিখেছেন, ‘কৃষ্ণগহ্বরের প্রথম ছবি! এটার জন্যই বিশেষ প্রোগ্রাম তৈরিতে কাজ করেছিলাম।’


এখানে শেয়ার বোতাম