শুক্রবার, ডিসেম্বর ৪

বিক্ষোভ মিছিল করে ঢাবিতে প্রবেশ করলো ছাত্রদল

এখানে শেয়ার বোতাম

অধিকার ডেস্ক :: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের হামলার শিকার হওয়ার পরদিন আজ আবার বিক্ষোভ মিছিল করে ঢাবিতে প্রবেশ করলো ছাত্রদল। এরপর মধুর ক্যান্টিনে গিয়েছেন ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা। আজ মঙ্গলবার ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল শেষে মধুর ক্যান্টিনে গিয়ে বেশ কিছু সময় অবস্থান করেন তারা।

জানা গেছে, সকাল থেকেই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি এলাকায় জড়ো হতে শুরু করেন ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা। পরে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বিক্ষোভ মিছিল বের করেন তারা।

মিছিলটি ক্যাম্পাসের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে মধুর ক্যান্টিনে গিয়ে শেষ হয়। ছাত্রদলের সভাপতি ফজলুর রহমান খোকন এবং সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন শ্যামলসহ সংগঠনটির দুই শতাধিক নেতাকর্মী এসময় উপস্থিত ছিলেন।

মধুর ক্যান্টিন থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. এ কে এম গোলাম রাব্বানীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা। এসময় তারা সোমবার ছাত্রলীগের হামলার বিষয়ে আলাচনা করেন বলে জানা গেছে। হামলার বিচারও দাবি করেছেন ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা।

গতকাল সোমবার দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি এলাকায় হামলার শিকার হন ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা। ছাত্রলীগের সভাপতির সনজিত চন্দ্র দাসের নেতৃত্বে চালানো এই হামলায় অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন বলে দাবি করেছেন সংগঠনটির নেতাকর্মীরা।

পরে ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ করেন ছাত্রদলের নেতাকর্মী। ছাত্রলীগের হামলার সময় পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে মারধরের শিকার হন তিন সাংবাদিক। পরে ছাত্রলীগ এ হামলার দায় শিকার করে।

ছাত্রলীগের হামলায় আহত ছাত্রদলের নেতা-কর্মীদের দেখতে যান ডাকসু ভিপি নুরুল হক। এসময় ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের যুগ্ম আহবায়ক ফারুক হাসান সহ কয়েকজন নেতাও উপস্থিত ছিলেন।

এ বিষয়ে নুরুক হক বলেন, ডাকসুর ভিপি হিসেবে প্রত্যেকটা শিক্ষার্থীদের ব্যাপারে আমার দায়িত্ববোধ রয়েছে। সাংগঠনিকভাবেও আমরা এসব সহিংসতার নিন্দা জানিয়েছি। এছাড়া আমরা সাধারণ শিক্ষার্থীদের নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে সুষ্ঠু পরিবেশ বজায় রাখতে কাজ করি। সার্বিক দিক বিবেচনায় আমরা ছাত্রদলের আহতদের হাসপাতালে দেখতে যাই।

এর আগে ছাত্রদলের নেতা-কর্মী ও সাংবাদিকের হামলার মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয়ের গণতান্ত্রিক পরিবেশ বিনষ্ট করে একটি কর্তৃত্ববাদী পরিবেশ কায়েম করার জন্য ছাত্রলীগ এই হামলা চালাচ্ছে বলে এর প্রতিবাদ জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের ভিপি নুরুল হক। এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে প্রতিবাদ জানান তিনি।


এখানে শেয়ার বোতাম