বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ৩

বাসদ ও বাম ঐক্য ফ্রন্টের মতবিনিময়, যুগপৎ আন্দোলনে একমত প্রকাশ

এখানে শেয়ার বোতাম

নিজস্ব প্রতিবেদক :: বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ ও বাম ঐক্য ফ্রন্টের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের এক মতবিনিময় সভা আজ (২১ জানুয়ারি) সকাল ১১টায় রাজধানীর তোপখানা রোডস্থ বাসদ কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কমরেড বজলুর রশীদ ফিরোজ।

সভার শুরুতে বাসদ এর পক্ষ থেকে বর্তমান পরিস্থিতিতে বামপন্থীদের করণীয় বিষয়ে আলোচনার সূত্রপাতের জন্য বক্তব্য তুলে ধরেন বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কমরেড রাজেকুজ্জামান রতন।

এরপর বক্তব্য রাখেন বাম ঐক্য ফ্রন্টের সমন্বয়ক ও গণমুক্তি ইউনিয়নের আহ্বায়ক কমরেড নাসিরুদ্দিন নাসু, বাম ঐক্য ফ্রন্টের কেন্দ্রীয় নেতা গণমুক্তি ইউনিয়নের সমন্বয়ক কমরেড ইমাম গাজ্জালী, বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক পার্টির সম্পাদক কমরেড সরওয়ার মোরশেদ, বাসদ (মাহবুব) এর কেন্দ্রীয় নেতা কমরেড শওকত হোসেন আহম্মেদ বায়রন, কমরেড মহিন উদ্দিন চৌধুরী লিটন ও বাসদ নেতা কমরেড আবদুর রাজ্জাক।

উল্লেখ্য, বাসদ এর প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে গত ৮ নভেম্বর ২০১৯ বিএমএ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত ‘বিদ্যমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি ও বামপন্থীদের করণীয়’ শীর্ষক আলোচনা সভায় বিভিন্ন বাম দলের নেতৃবৃন্দের বক্তব্যে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের তাগিদ অনুভব করেন, তার প্রেক্ষিতে সভাপতির বক্তব্যে বাসদ সাধারণ সম্পাদক কমরেড খালেকুজ্জামান খুব শীঘ্রই সকল বামপন্থী দলের নেতৃবৃন্দের সভা অনুষ্ঠানের ঘোষণা দেন। তারই অংশ হিসেবে বাসদ এর আয়োজনে গত ১৫ জানুয়ারি ১২টি বামপন্থী দলের শীর্ষ নেতৃবৃন্দের সভা অনুষ্ঠিত হয়। ক্রিয়াশীল অপরাপর বামপন্থী দল ও জোটকেও ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের ধারায় নিয়ে আসার জন্য আলোচনা ও মতবিনিময়ের অংশ হিসেবে আজ ৪টি বাম দলের সমন্বয়ে গঠিত বাম ঐক্য ফ্রন্টের নেতৃবৃন্দের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় দেশের বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি, গণতন্ত্রহীনতা, ফ্যাসিবাদী দুঃশাসন, শ্রমিক-কৃষক-ছাত্র-নারীসহ বিভিন্ন শ্রেণিপেশার দাবি ও অধিকার আদায়ের আন্দোলন, সাম্রাজ্যবাদী আগ্রাসন লুণ্ঠন, বামপন্থীদের ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন ও বিকল্প গড়ে তোলা ইত্যাদি নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়।

সভায় আওয়ামী ফ্যাসিবাদী দুঃশাসন উচ্ছেদ, বাম গণতান্ত্রিক বিকল্প রাজনৈতিক শক্তি গড়ে তোলা, শ্রমিক-কৃষক মেহনতি মানুষের রাষ্ট্র ও সরকার প্রতিষ্ঠা, মার্কিন-ভারতসহ সকল সাম্রাজ্যবাদী-আধিপত্যবাদী শক্তির রাজনৈতিক-অর্থনৈতিক-সাংস্কৃতিক আগ্রাসন লুণ্ঠন এর বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন গড়ে তোলার ব্যাপারে ঐক্যমত্য প্রকাশ করা হয়। এবং জনজীবনের জ্বলন্ত সমস্যা নিয়ে ইস্যু ভিত্তিক দাবি দাওয়া নিয়ে ঐক্যবদ্ধ, যুগপৎ আন্দোলনের কর্মসূচি গ্রহণের বিষয়ে দ্রুত আরো আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়ার বিষয়েও একমত প্রকাশ করা হয়।


এখানে শেয়ার বোতাম