বুধবার ‚ ১৩ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ ‚ ২৭শে মে, ২০২০ ইং ‚ রাত ২:০২

Home জাতীয় অর্থনীতি বকেয়া বেতন-বোনাসের দাবিতে সারাদেশে শ্রমিকদের বিক্ষোভ

বকেয়া বেতন-বোনাসের দাবিতে সারাদেশে শ্রমিকদের বিক্ষোভ

অধিকার ডেস্ক:: দেশের বিভিন্ন স্থানে বেতন, বোনাস ও কারখানা খুলে দেওয়ার দাবিতে শ্রমিক বিক্ষোভ হয়েছে। এর আগে রবিবার আশুলিয়া, গাজীপুর, চট্টগ্রাম ও নারায়ণগঞ্জে কমপক্ষে ২২টি কারখানায় বিক্ষোভ হয়েছে। আগের দিন শনিবার ১৮টি এবং সবমিলে চলতি মাসে ঢাকাসহ সারা দেশে ২৪৫টি কারখানায় বিক্ষোভ হয়েছে।

সাভার:

সোমবার আশুলিয়ায় তিন মাসের বকেয়া বেতন, শতভাগ বোনাস পরিশোধ ও বন্ধ কারখানা খুলে দেওয়ার দাবিতে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে একটি তৈরি পোশাক কারখানার দুই শতাধিক শ্রমিক। সোমবার দুপুরে সিঅ্যান্ডবি-আশুলিয়া সড়কের বি-বাংলা এলাকায় সড়ক অবরোধ করে করে স্থানীয় কম্বাইন টেক্স লিমিটেড কারখানার শ্রমিকরা।

খবর পেয়ে শিল্প পুলিশের সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে তাদের সরিয়ে দিলে বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা কারখানার সামনে অবস্থান নেয়।

কারখানাটির কাটিং মাস্টার শরিফুল ইসলাম বলেন, আমরা গত তিন মাস ধরে বেতন না পেয়ে অনাহারে-অর্ধাহারে দিন কাটাচ্ছি। এরই মধ্যে কর্তৃপক্ষ আমাদের বকেয়া বেতন পরিশোধ না করে কারাখানাটি বন্ধ করে পালিয়ে গেছে। এখন বাড়িওয়ালা এবং দোকান মালিক বাকি টাকার জন্য চাপ দিচ্ছেন।

এদিকে আশুলিয়ার মধ্য গাজিরচট এলাকার ফোজিয়া অ্যান্ড ফাহিম ফ্যাশনস লিমিটেড কর্তৃপক্ষ গত মার্চ মাসে শ্রমিকদের ২০ দিনের বেতন দিয়ে কারখানা বন্ধ করে দেয়। এরপর থেকে মার্চ ও এপ্রিল মাসের বকেয়া বেতনসহ ঈদুল ফিতরের বোনাসের দাবি জানিয়ে আসছিলেন শ্রমিকেরা। কারখানা কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে সাড়া না পেয়ে সোমবার সকালে কারখানার সামনে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করে শ্রমিকরা। এছাড়া আশুলিয়ার শিমুলতলা এলাকার বেশ কয়েকটি কারখানায় শ্রমিকরা শতভাগ ঈদ বোনাসের দাবিতে সকাল থেকে বিক্ষোভ করেন। পরে মালিকপক্ষের সঙ্গে আলোচনার পর দুটি কারখানার শ্রমিকরা কাজে যোগ দেন।

অন্য দিকে ধামরাইয়ের জয়পুরা এলাকার মম ফ্যাশনসের শ্রমিকরা এপ্রিল মাসের বেতনের দাবিতে সোমবার সকাল থেকে কাজ বন্ধ করে কারখানার ভেতরে বিক্ষোভ করেন। বেতন না পাওয়া পর্যন্ত তারা কাজ করবেন না বলে জানিয়েছেন শিল্প পুলিশের এক কর্মকর্তা। শিল্প পুলিশের ওই কর্মকর্তা বলেন, বিভিন্ন কারখানার শ্রমিকেরা শতভাগ ঈদ বোনাসের দাবিতে বিক্ষোভ করছেন। তবে ওইসব কারখানার শ্রমিক ও মালিকপক্ষের সঙ্গে কথা বলে শ্রমিকদের কাজে ফেরানো হচ্ছে।

ধামরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, অপ্রীতিকর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

নারায়ণগঞ্জ:

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে ঈদ সামনে রেখে চলতি মাসের অর্ধেক বেতন, বেতনের অর্ধেক ঈদ বোনাসের দাবিতে গ্রামটেক গার্মেন্টস লিমিটেড নামে একটি রপ্তানীমুখী পোশাক কারখানায় শ্রমিকরা বিক্ষোভ করেছে।

সোমবার সকালে উপজেলার ডহরগাঁও এলাকায় বিক্ষোভের ঘটনা ঘটে। এ সময় বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা প্রায় সকাল ৬টা বেলা ১২টা পর্যন্ত গাউছিয়া-আড়াইহাজার সড়ক অবরোধ করে রাখে। রাস্তায় বিক্ষোভের কারণে উভয়দিকে যানচলাচল বন্ধ থাকায় প্রায় দীর্ঘ ৪ কিলোমিটার যানজটের সৃষ্টি হয়।

শ্রমিকরা জানান, এ পোশাক কারখানায় ৩ হাজার শ্রমিক কাজ করেন। সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী পোশাক কারখানাটি খোলা হয়। কারখানার শ্রমিকরা মালিকপক্ষের কাছে চলতি মাসের অর্ধেক বেতন ও বেতনের অর্ধেক ঈদ বোনাস দাবি করেন। মালিকপক্ষ তাদের দাবি মানবে না বলে জানিয়ে দেয়। এতে শ্রমিকরা ক্ষিপ্ত হয়ে কারখানার সামনে বিক্ষোভ শুরু করেন। পরে রূপগঞ্জ থানা পুলিশ, ইন্ডাসট্রিয়াল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এ ব্যাপারে পোশাক কারখানাটির ব্যবস্থাপক জিয়াউর রহমান জিয়ার সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি তার ব্যবহৃত ফোনটি রিসিভ করেনি।

এ ব্যাপারে ’গ’ সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার মাহিন ফরাজী বলেন, আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। বিক্ষোভের খবর পেয়ে রূপগঞ্জ থানা পুলিশ, ইন্ডাসট্রিয়াল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে শ্রমিকদের ধাওয়া দিয়ে ছত্রভঙ্গ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পরে মালিকপক্ষ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে শ্রমিদের দাবি মেনে নিলে শ্রমিকরা অবরোধ তুলে কাজে যোগ দেন।

সুনামগঞ্জ :

বেতন-ভাতা ও ত্রাণ সহায়তার দাবিতে শ্রমিকরা অবস্থান কর্মসুচি পালন করেছেন। হোটেল-রেস্টেুরেন্ট, মিষ্টি-বেকারি ও হকার্স শ্রমিক ইউনিয়নের শ্রমিকরা এ কর্মসূচি পালন করেন। পরে একই দাবিতে জেলা প্রশাসকের কাছে স্মারকলিপি দেন তারা।

সোমবার দুপুর ১২টায় সুনামগঞ্জ পৌর শহরের আলফাত স্কয়ার এলাকায় এই কর্মসূচি পালিত হয়। অবস্থান র্কমসূচি চলাকালে জেলা হোটলে শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি লাল মিয়া, হর্কাস শ্রমিক সংঘের জেলা সভাপতি আবদুল হাই, সহসভাপতি শাহ আলম, সাংগঠনিক সম্পাদক বনিন্দ্র কর, হোটলে শ্রমিকনেতা মহিবুর রহমান, কাজল দাশ, মানিক মিয়া প্রমুখ বক্তব্য দেন।

তারা বলেন, করোনা পরিস্থিতির কারণে গত ২৬ মার্চ থেকে হোটেল-রেস্টুরেন্টসহ সব দোকানপাট বন্ধ। এরপর থেকে কোনো কাজ নেই। মালিকেরা শ্রমিকদের এখন পর্যন্ত কোনো বেতন দেননি। এতে চরম অর্থকষ্টে পড়েছেন শ্রমিকরা। পরিবার-পরিজন নিয়ে অনাহারে-অর্ধাহারে দিন কাটাচ্ছেন তারা। সামনে ঈদ। বকেয়া বেতনসহ আমরা উৎসব বোনাস চাই।

সাতক্ষীরা :

ত্রাণের দাবিতে সাতক্ষীরায় ১৩টি শ্রমিক সংগঠন জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করেছে। জেলা শ্রমিক আন্দোলন সাতক্ষীরার ব্যানারে রবিবার বেলা ১১টার সময় এ বিক্ষোভ ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধন ও বিক্ষোভে শ্রমিকরা তাদের ত্রাণ সহায়তা ও আর্থিক প্রণোদনার জোর দাবি জানান।

বিক্ষোভ সমাবেশে জেলা শ্রমিক আন্দোলনের আহ্বায়ক ও জাতীয় শ্রমিক ফেডারেশনের সাতক্ষীরা জেলা কমিটির সভাপতি অ্যাড. ফাহিমুল হক কিসলুর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, সংগঠনটির সদস্য সচিব ফারুকুজ্জামান, রবিউল ইসলাম, হাফিজুল ইসলাম, শামীম বাবু, আব্দুস সালাম বাচ্চ প্রমুখ।

জেলা প্রশাসক এস.এম মোস্তফা কামাল এ সময় শ্রমিকদের বক্তব্য শোনেন এবং তাদের ত্রাণ সহায়তা ও আর্থিক প্রণোদনার ব্যাপারে তাদেরকে আশ্বস্ত করেন।

ঝিনাইদহ :

ঝিনাইদহে বকেয়া বেতন-ভাতার দাবিতে সড়ক অবরোধ ও বিক্ষোভ করেছে মোবারকগঞ্জ সুগার মিলের শ্রমিক কর্মচারীরা।

সোমবার সকালে কারখানা ফটকে তারা বিক্ষোভ সমাবেশ করে। এ সময় সুগার মিলের শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি গোলাম রসুল, সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলামসহ অন্যরা বক্তব্য রাখেন। তারা অভিযোগ করেন, গত ৪ মাস কারখানার প্রায় সাড়ে ৮ শ শ্রমিক-কর্মচারী বেতন পাচ্ছে না। এতে মানবেতর জীবনযাপন করছেন তারা। সমাবেশ থেকে দ্রুত টাকা পরিশোধের দাবি জানান হয়। পরে সেখান থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করা হয়।

পরে তারা ঝিনাইদহ-যশোর মহাসড়ক অবরোধ করে দাবি আদায়ে বিভিন্ন স্লোগান দিতে থাকে। এ সময় সড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। প্রায় ৩০ মিনিট সড়ক অবরোধের পর কারখানা কর্তৃপক্ষের আশ্বাসে তারা অবরোধ তুলে নেয়।

ময়মনসিংহ :

ময়মসিংহের ভালুকায় বেতন ও শতভাগ ঈদ বোনাসের দাবিতে সোমবার দুপুরে মিলের ভেতরে বিক্ষোভ মিছিল করে জি,এম ও এজিএমসহ কর্মকর্তাদের অবরোধ করে রাখে উছমান গ্র“পের শ্রমিকরা।

খবর পেয়ে ভালুকা মডেল থানা পুলিশ ও শিল্প পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে মালিক পক্ষের সঙ্গে কথা বলে শ্রমিকদের দাবি পূরণ করা হবে আশ্বাস দিলে পরিস্থিতি শান্ত হয়।

জানা যায়, উপজেলার ৯ নম্বর ওয়ার্ড কাঠালী পৌর এলাকায় অবস্থিত উছমান গ্রুপের ইকরাম সোয়েটারে প্রায় ৫ হাজার শ্রমিক এপ্রিল ও মে মাসের বেতন এবং ঈদ বোনাসের দাবিতে সোমবার দুপুরে মিল গেইটের ভেতরে বিক্ষোভ মিছিল করে মিলের জেনারেল ম্যানেজারসহ কর্মকর্তাদের অবরোধ করে শ্রমিকরা।

আন্দোলনরত শ্রমিকরা জানান, এপ্রিল মাসে আমাদের ৬৫ ভাগ বেতন দেওয়ার কথা থাকলেও ৪০ থেকে ৫০ ভাগ বেতন দিয়েছে। মে মাসে মিল কর্তৃপক্ষ আমাদের এভাবেই বেতন দিতে চাচ্ছে এবং ঈদ বোনাস ২৫ ভাগ দেওয়ার ঘোষণা দিলে আমরা শত ভাগ বেতন ও ঈদ বোনাস দেওয়ার দাবি জানাই।

ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার মেজবাহ উদ্দিন জানান, মঙ্গলবার সরকারী বিধি মোতাবেক শ্রমিকদের বেতন ও বোনাস পরিশোধ করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সর্বশেষ

যুক্তরাষ্ট্রে মৃতের সংখ্যা লাখ ছাড়ালো, বিশ্বে ৩ লাখ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: মহামারি করোনায় যুক্তরাষ্ট্রের মৃতের সংখ্যা এক লাখ ছাড়িয়েছে। শুধুমাত্র নিউইয়র্কেই মারা গেছে ২৯ হাজারের বেশি মানুষ। নিউইয়র্কে আক্রান্তের সংখ্যা তিন...

রংপুরে মদপানে ঈদ উদযাপন, ৬ জনের মৃত্যু

অধিকার ডেস্ক:: রংপুরের পীরগঞ্জ উপজেলায় বিষাক্ত মদপানে ছয়জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সঙ্গে মদপানে অসুস্থ হয়ে হাসপাতাল ও বাড়িতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন অন্তত সাতজন।

যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে বাংলাদেশে করোনার সংক্রমণ হার বেশি

অধিকার ডেস্ক:: এপ্রিলের শুরুতে করোনার সংক্রমণ হার ৫ শতাংশের নিচে থাকলেও চলতি সপ্তাহে তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৮ শতাংশে। দেশে নমুনা পরীক্ষায় আগের...

যুদ্ধের জন্য সেনাবাহিনীকে প্রস্তুত থাকার নির্দেশ দিলেন চীনের প্রেসিডেন্ট

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :: করোনা পরিস্থিতির মধ্যে যুদ্ধের জন্য সেনাবাহিনীকে প্রস্তুত থাকার নির্দেশ দিলেন চীনের প্রেসিডেন্ট শি চিনপিং। রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম...