সোমবার, মার্চ ১
শীর্ষ সংবাদ

প্রবাসে নারী শ্রমিক নির্যাতন-লাঞ্ছনা বন্ধে কার্যকর ব্যবস্থা নেয়ার দাবি শ্রমিক ফ্রন্টের

এখানে শেয়ার বোতাম

নিজস্ব প্রতিবেদক :: প্রবাসী নারী শ্রমিকদের উপর নির্যাতন বন্ধে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহনের দাবি করেছে সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্ট। আজ সোমবার (০৪ নভেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে আয়োজিত এক বিক্ষোভ সমাবেশে নেতৃবৃন্দ এই দাবি জানান।

সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্টের সভাপতি রাজেকুজ্জামান রতনের সভাপতিত্বে অনুষ্টিত বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সাধারণ সম্পাদক আহসান হাবিব বুলবুল, সাংগঠনিক সম্পাদক খালেকুজ্জামান লিপন, অর্থ সম্পাদক জুলফিকার আলী, সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরামের সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী শম্পা বসু, রি-রোলিং শ্রমিক ফ্রন্টের সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম খান বিপ্লব, গার্মেন্টস শ্রমিক ফ্রন্টের সাধারণ সম্পাদক সেলিম মাহমুদ প্রমুখ।

সমাবেশে নেতৃবৃন্দ বলেন, আমাদের দেশের প্রায় ১ কোটি ২৫ লাখ মানুষ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে জীবিকার সন্ধানে গিয়েছে। এর মধ্যে প্রায় ৮ লাখ নারী শ্রমিক। সৌদি আরব সহ মধ্যপ্রাচ্যের ৫ টি দেশেই এই নারী শ্রমিকরা কাজ করেন। প্রতি বছর প্রায় ১৬ বিলিয়ন ডলার রেমিটেন্স পাঠায় এই প্রবাসী শ্রমিকরা। কিন্তু তাদের বিদেশ যাওয়ার খরচ বেশী, বিদেশে অমানবিক কর্মপরিবেশ, নারী নির্যাতন, ধর্ষণ প্রভৃতির কারনে ইতিমধ্যে ৩ হাজারের বেশী নারী শ্রমিকের মৃত্যু ঘটেছে। হাজার হাজার নারী লাঞ্ছিত হয়ে দেশে ফিরতে বাধ্য হয়েছে। তাদের কথায় ফুটে উঠেছে সৌদি আরব, ওমান, জর্দান. কুয়েত, আরব-আমিরাতে নারী শ্রমিক লাঞ্ছনার করুন চিত্র। কিন্তু রাষ্ট্র এ ব্যাপারে তার পদক্ষেপ এবং ভূমিকা এখনও স্পষ্ট করেনি। বরং দায়ীত্বশীল অনেকে নারী শ্রমিকদের প্রতিই দায় চাপানোর চেষ্টা করছেন।

নেতৃবৃন্দ আরও বলেন, পৃথিবীর অনেক দেশ মধ্যপ্রাচ্যে নারী শ্রমিক পাঠানো বন্ধ করেছে। বাংলাদেশ সরকারের উচিত বিদেশে কর্মরত সকল বাংলাদেশী শ্রমিক বিষেশত নারী শ্রমিকদের সম্মান, ন্যায্য মজুরি, নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করা। লাঞ্ছিত ও প্রতারিত হওয়ার জন্য বাংলাদেশের নারী শ্রমিকদেরকে যেন বিদেশে পাঠানো না হয় সে ব্যপারে সোচ্চার হওয়ার জন্য নেতৃবৃন্দ দেশবাসীর প্রতি আহবান জানান।


এখানে শেয়ার বোতাম