শুক্রবার, জানুয়ারি ২২

দিয়াবাড়িতে কোয়ারেনটাইন সেন্টার স্থাপনের সিদ্ধান্ত বাতিল

এখানে শেয়ার বোতাম
  • 12
    Shares

অধিকার ডেস্ক:: রাজউকের উত্তরা অ্যাপার্টমেন্ট প্রকল্পের দিয়াবাড়িতে কোয়ারেনটাইন সেন্টার খোলার সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়েছে।

শনিবার আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর (আইএসপিআর) পরিচালক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আব্দুল্লাহ ইবনে জায়েদ বলেন, আপাতত দিয়াবাড়িতে কোয়ারেনটাইন সেন্টার হচ্ছে না। সেন্টারটি খোলার জন্য নতুন জায়গা খোঁজা হচ্ছে।

দিয়াবাড়ির একটি ভবনে কোয়ারেনটাইন সেন্টার খোলায় শুক্রবার বিক্ষোভ করেন ভবনের মালিক ও বাসিন্দারা।

তাদের দাবি ছিল, কোয়ারেনটাইন সেন্টার হলে আবাসিক এলাকার বাসিন্দাদের স্বাস্থ্যঝুঁকি বাড়বে।

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব রোধে দুটি কোয়ারেনটাইনের দায়িত্ব গত বৃহস্পতিবার সেনাবাহিনীকে দেওয়া হয়। কেন্দ্র দুটি হলো-আশকোনায় হজ ক্যাম্প ও উত্তরা ১৮ নম্বর সেক্টরে অবস্থিত দিয়াবাড়ির রাজউকের অ্যাপার্টমেন্ট প্রকল্প এলাকা।

এ কর্মসূচির অংশ হিসেবে বিদেশ থেকে আসা যাত্রীদের প্রয়োজনীয় স্ক্রিনিং করে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নির্বাচিত ব্যক্তিদের বিমানবন্দরে প্রয়োজনীয় ইমিগ্রেশন কার্যক্রম শেষে সেনাবাহিনীর কাছে হস্তান্তর করা হবে। হস্তান্তরের পর সেনাবাহিনীর সার্বিক তত্ত্বাবধানে এসব যাত্রীকে বিমানবন্দর থেকে কোয়ারেনটাইন সেন্টারে স্থানান্তর, ডিজিটাল ডাটা এন্ট্রি কার্যক্রম সম্পন্ন, কোয়ারেনটাইন সেন্টারে থাকাকালীন আহার, বাসস্থান, চিকিৎসা এবং অন্যান্য আনুষাঙ্গিক সেবা প্রদানের ব্যবস্থা করা হবে।

এ কর্মসূচি বাস্তবায়নে সেনাবাহিনীকে সরকারের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়সহ সংশ্লিষ্ট অন্যান্য মন্ত্রণালয়, সংস্থা, অধিদফতর ও বাহিনী প্রয়োজনীয় সহায়তা দেবে।


এখানে শেয়ার বোতাম
  • 12
    Shares