শনিবার, মে ৮
শীর্ষ সংবাদ

এনআরসি ও কাশ্মির ইস্যু একসূত্রে গাঁথা : ইমরান খান

এখানে শেয়ার বোতাম

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :: বিতর্কিত কাশ্মির নিয়ে ভারত-পাকিস্তান সম্পর্ক নাজুক অবস্থায় রয়েছে। এরইমধ্যে আসামের নাগরিক তালিকা বা এনআরসি নিয়ে উদ্বেগ জানিয়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। তার মতে, আসামের এনআরসি ও কাশ্মির ইস্যু একসূত্রে গাঁথা। মুসলিমদের ওপর দমন-নিপীড়নের অংশ হিসেবে বিজেপি ও মোদি সরকার এধরনের পদক্ষেপ নিচ্ছে।

টুইটে এই আশঙ্কা জানান ইমরান খান। শনিবার (৩১ আগস্ট) ইন্ডিয়া টুডের খবরে একথা বলা হয়েছে।

ইমরান লেখেন, মোদি সরকার সংখ্যালঘুদের নিধনের যে চেষ্টা করছে সে বিষয়ে মুসলিমদের উচিত বিশ্বে সতর্কবার্তা পাঠানো। কাশ্মিরে জবরদস্তি মুসলিমদের টার্গেট করেই মোদির বৃহত্তর পরিকল্পনার অংশ।

আসামের চূড়ান্ত নাগরিক তালিকা থেকে বাদ ১৯ লাখ

প্রসঙ্গত, আসামের চূড়ান্ত নাগরিক তালিকায় (এনআরসি) বাদ পড়েছেন প্রায় ১৯ লাখ বসবাসকারী। তারা আগামী ১২০ দিনের মধ্যে আপিলের সুযোগ পাবেন। এরপর থাকছে হাইকোর্ট ও সুপ্রিমকোর্টের রায়ের। তবে যে সমস্ত বসবাসকারী ভারতের নাগরিক বলে বিবেচিত হবেন না তাদের কপালে কি ঘটবে তা অনিশ্চিত। অভিযোগ রয়েছে বাদপড়াদের অধিকাংশই মুসলিম সংখ্যালঘু।

১৯৫১ সালে প্রথম আসামে অবৈধ বসবাসকারীদের চিহ্নিত করতে নাগরিক বিল প্রকাশিত হয়। এরপর বিভিন্ন সময়ে এই তালিকা সংশোধন করা হয়। ১৯৭১ সালের ২৪ মার্চের পর থেকে যে সমস্ত ‘বাংলাদেশি’ নাগরিক বেআইনিভাবে ভারতে এসে বসবাস করছেন তাদের তালিকা সংশোধনের জন্য নির্দেশ দিয়েছে ভারতের সুপ্রিম কোর্ট। বিভিন্ন সংগঠন এ সমস্যা নিরসনে বাংলাদেশের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক আলোচনার আহ্বান জানিয়েছে। তবে বাংলাদেশ জানিয়েছে বিষয়টি ভারতের অভ্যন্তরীণ ইস্যু।


এখানে শেয়ার বোতাম