বৃহস্পতিবার, ফেব্রুয়ারি ২৫
শীর্ষ সংবাদ

ইসমাইল-শিরিনের কাছেই থাকল মুকুট

এখানে শেয়ার বোতাম
  • 7
    Shares

অধিকার ডেস্ক:: জাতীয় অ্যাথলেটিকস চ্যাম্পিয়নশিপে রাজা-রানীর পরিবর্তন হলো না। গতবারের মতো এবারও ট্র্যাকের রাজা মোহাম্মদ ইসমাইল হোসেন আর রানীর মুকুট মাথায় তুললেন শিরিন আক্তার।

বঙ্গবন্ধু ৪৪তম জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপের পুরুষ এককে ১০০ মিটার স্প্রিন্টে ১০.৫৫ সেকেন্ড সময় নিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন ইসমাইল আর নারী এককে ১১.৮০ সেকেন্ড সময় নিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন শিরিন। জাতীয় ও সামার মিট মিলিয়ে টানা ১১ বার দেশের দ্রুততম মানবী হয়ে নিজের রেকর্ড আরও মজবুত করলেন সাতক্ষীরার শিরিন। আর এ নিয়ে টানা তৃতীয়বার দেশের দ্রুততম মানব হলেন কুমিল্লার মোহাম্মদ ইসমাইল হোসেন।

শুক্রবার ১০০ মিটার ইভেন্টে সবাইকে পেছনে ফেলেন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর মোহাম্মদ ইসমাইল হোসেন। দ্রুততম মানবী শিরিন নিজের টাইমিংয়ের উন্নতি করলেও পেছনে হেঁটেছেন ইসমাইল। গত বছর জানুয়ারিতে জাতীয় অ্যাথলেটিকস চ্যাম্পিয়নশিপে চট্টগ্রামে ঘাসের ট্র্যাকে ইসমাইল সময় নিয়েছিলেন ১০.৪০ সেকেন্ড, এবার ১০.৫৫। শিরিন চট্টগ্রামে দৌড় শেষ করেছিলেন ১২.১০ সেকেন্ডে, ঢাকায় ১১.৮০। তবে দুবারই হ্যান্ডটাইমিংয়ে সময় মাপা হয়েছে, আন্তর্জাতিক পর্যায়ে যার কোনো গ্রহণযোগ্যতা নেই।

দৌড়ের শুরুতে শিরিন পিছিয়ে পড়েন। কিন্তু ৬০-৭০ মিটারের পর থেকে অন্যদের পেছনে ফেলে বাংলাদেশ নৌবাহিনীর শিরিন ফিনিশিং মার্কে পৌঁছে যান সবার আগে। বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর শরীফা খাতুন ১২.২০ সেকেন্ড সময় নিয়ে দ্বিতীয় ও বাংলাদেশ আনসারের কবিতা রায় ১২.৪০ সেকেন্ড সময় নিয়ে তৃতীয় হয়েছেন।

ছেলেদের ১০০ মিটারে মোহাম্মদ ইসমাইল হোসেন প্রথম হয়েও টাইমিং নিয়ে কিছুটা অতৃপ্তি প্রকাশ করেছেন। কারণ, চট্টগ্রামের চেয়ে তিনি সময় নিয়েছেন ০০.১৫ সেকেন্ড বেশি। গত বছর নেপালে এসএ গেমসে ইসমাইলের টাইমিং ছিল ১০.৭৬ সেকেন্ড। ছেলেদের ১০০ মিটার স্প্রিন্টে দ্বিতীয় হয়েছেন বাংলাদেশ নৌবাহিনীর রকিবুল হাসান। তিনি সময় নিয়েছেন ১০.৬০ সেকেন্ড। তৃতীয় হয়েছেন বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর মো. হাসান মিয়া। তার টাইমিং ১০.৭০ সেকেন্ড।

শনিবার জাতীয় অ্যাথলেটিকস চ্যাম্পিয়নশিপের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল এমপি। জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপে ৬৪ জেলা, ৮ বিভাগ, বিশ্ববিদ্যালয়, শিক্ষা বোর্ড, বিকেএসপি, বিজেএমসিসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ৪৫০ জন (পুরুষ ও মহিলা) অ্যাথলেট ও ১৫০ জন কর্মকর্তা অংশগ্রহণ করবেন। তিন দিনব্যাপী এই প্রতিযোগিতায় পুরুষ ও মহিলা দুটি গ্রুপে ৩৬ ইভেন্টে প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে। এর মধ্যে পুরুষদের ২২ ও মহিলাদের ১৪টি ইভেন্ট।


এখানে শেয়ার বোতাম
  • 7
    Shares