রবিবার, ফেব্রুয়ারি ২৮
শীর্ষ সংবাদ

অমিত করোনা আক্রান্ত, তারপরও রাম মন্দিরের ভিত্তি গড়তে যাচ্ছেন মোদি

এখানে শেয়ার বোতাম

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: ভারতের উত্তরপ্রদেশের অযোদ্ধায় বহুল বিতর্কিত রাম মন্দির নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করতে যাচ্ছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ; যিনি মোদির শীর্ষ লেফটেন্যান্ট হিসেবে পরিচিত, তিনি করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। চারদিন আগে মন্ত্রিসভার এক বৈঠকে অংশ নিয়েছিলেন অমিত শাহ, সেখানে উপস্থিত ছিলেন মোদিও।

মন্ত্রী করোনায় আক্রান্ত হওয়া স্বত্ত্বেও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি উত্তরপ্রদেশের অযোদ্ধায় ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন কাজের উদ্বোধনীতে অংশ নেবেন বলে আয়োজকরা বার্তাসংস্থা রয়টার্সকে জানিয়েছেন।

এর আগে, রোববার দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে দিল্লির একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। প্রধানমন্ত্রী মোদির উপস্থিতিতে দেশটির মন্ত্রিপরিষদের এক বৈঠকে অংশ নেয়ার চারদিন পর অমিত শাহর করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ আসে।

শ্রী রাম জন্মভূমি তীর্থ ক্ষেত্র ট্রাস্ট বলছে, দেবতা রামের সম্মানে উত্তরাঞ্চলীয় শহর অযোদ্ধায় মন্দির নির্মাণ কাজের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে মোদির অংশগ্রহণ ঘিরে প্রস্তুতি চলছে।

তিন দশক আগে এই স্থানে মুসলিম ধর্মাবলম্বীদের মসজিদ ধ্বংস করে দেশটির কট্টরপন্থী হিন্দুত্ববাদীরা। সেই মসজিদের স্থানে এখন রাম মন্দিরের নির্মাণ কাজ শুরু হতে যাচ্ছে বুধবার।

মন্দিরের নির্মাণকাজের উদ্বোধনীতে নরেন্দ্র মোদির অংশগ্রহণের ব্যাপারে ই-মেইলে জানতে চাইলে কোনও জবাব দেয়নি প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়। তবে দেশটির কট্টর হিন্দুত্ববাদীদের সংগঠন বিশ্ব হিন্দু পরিষদ বলেছে, মোদি নির্মাণকাজের উদ্বোধনীতে যোগ দেবেন। এই সংগঠনটি অযোদ্ধায় রাম মন্দির নির্মাণ কাজের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট রয়েছে।

অযোদ্ধায় নরেন্দ্র মোদির সফরের ব্যাপারে মঙ্গলবার আনুষ্ঠানিক ঘোষণা আসতে পারে সংশ্লিষ্ট সূত্রগুলো ধারণা করছে। অমিত শাহ করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর অন্যদের ব্যাপারে উদ্বেগ দেখা দিলেও তা প্রত্যাখ্যান করেছে সূত্রগুলো। তারা বলেছেন, মোদির বাসভবনে গত সপ্তাহে সামাজিক দূরত্বের বিধান মেনেই মন্ত্রিসভার বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে।

তবে ওই বৈঠকের পর অমিত শাহ করোনায় আক্রান্ত হলেও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এবং অন্যান্যদের কোভিড-১৯ পরীক্ষা করা হয়েছে কিনা, তা তাৎক্ষণিকভাবে পরিষ্কার হওয়া যায়নি।

ভারতে সোমবারও নতুন করে ৫২ হাজার ৯৭২ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। দেশটিতে টানা পঞ্চমদিনের মতো ৫০ হাজারের বেশি করে মানুষ করোনায় আক্রান্ত হলেন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে মারা গেছেন আরও ৭৭১ জন; এ নিয়ে দেশটিতে করোনায় মৃত্যুর সংখ্যা ৩৮ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১৮ লাখ ছাড়িয়েছে; যা বিশ্বে যুক্তরাষ্ট্র এবং ব্রাজিলের পরে তৃতীয় সর্বোচ্চ।


এখানে শেয়ার বোতাম